• সোমবার ১৫ জুলাই ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৩১ ১৪৩১

  • || ০৭ মুহররম ১৪৪৬

নাটোরে ধর্ষণ মামলায় সাবেক ইউপি সদস্যের যাবজ্জীবন

আজকের টাঙ্গাইল

প্রকাশিত: ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় ধর্ষণ মামলার আলাদা দুটি ধারায় সাইফুল ইসলাম নামে এক সাবেক ইউপি সদস্যকে আলাদাভাবে যাবজ্জীবন ও ১৪ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। পাশাপাশি তাকে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একটি শেষ হলে আরেকটি সাজা শুরু হবে আসামির।
সোমবার দুপুরে নাটোরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক জেলা ও দায়রা জজ মুহাম্মদ আব্দুর রহিম এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত সাইফুল ইসলাম বাগাতিপাড়া উপজেলার জামনগর ইউনিয়নের সাবেক ইউপি সদস্য। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কোর্টের পেশকার সাইফুল ইসলাম।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, ২০০৩ সালের ১৮ অক্টোবর বাগাতিপাড়ার তৎকালীন ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলাম স্বামী পরিত্যক্তা এক নারীকে গার্মেন্টসে চাকরি দেওয়ার প্রলোভনে ঢাকায় নিয়ে যান। সেখানে তারা একটি আবাসিক হোটেলে স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে রাত্রিযাপন করেন। একপর্যায়ে ভুক্তভোগীকে ধর্ষণ করেন ইউপি সদস্য। পরে চাকরি খোঁজার নাম করে সেখান থেকে পালিয়ে যান সাইফুল।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী বাড়িতে ফিরে একই বছরের ২০ অক্টোবর বাদী হয়ে সাইফুলের বিরুদ্ধে আলাদা দুটি ধারায় মামলা করেন। এর ২০ বছর পর আদালত ধর্ষণ মামলার একটি ধারায় সাইফুলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। পাশাপাশি নারী ও শিশু নির্যাতনের একটি ধারায় তাকে ১৪ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন। আসামি বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন।

আদালতের পিপি আনিসুর রহমান বলেন, দণ্ডপ্রাপ্ত সাইফুলের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড শেষ হওয়ার পর ১৪ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড শুরু হবে বলে বিচারক আদেশ দিয়েছেন।

আজকের টাঙ্গাইল
আজকের টাঙ্গাইল