• শনিবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৫ ১৪২৭

  • || ১৬ রজব ১৪৪২

আজকের টাঙ্গাইল

টাঙ্গাইলে এসেছে ১ লাখ ২০ হাজার ডোজ করোনার টিকা

আজকের টাঙ্গাইল

প্রকাশিত: ২৯ জানুয়ারি ২০২১  

টাঙ্গাইলে করোনার এক লাখ ২০ হাজার ডোজ করোনা ভ্যাকসিন এসে পৌঁছেছে। শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে এ ভ্যাকসিন এসে পৌঁছায়। ভ্যাকসিনগুলো জেলা টিকা সংরক্ষণাগারের কোল্ডস্টোরেজে সংরক্ষণ করা হয়েছে। ভ্যাকসিনের মান ঠিক রাখা ও এর নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সব ধরণের ব্যবস্থা নিয়েছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।

টাঙ্গাইলের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. বিএম রিয়াজুল ইসলাম জানান, ১২ হাজার ভায়ালে মোট এক লাখ ২০ হাজার ডোজ ভ্যাকসিন টাঙ্গাইল আসে। সেগুলো কোল্ডস্টোরেজে সংরক্ষণ করা হয়েছে। এজন্য ওই কক্ষের তাপমাত্রা ঠিক রাখতে নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ ও তাপমাত্রা পর্যবেক্ষণের জন্য ইন্টারনেট সংযোগের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য সার্বক্ষণিক পুলিশ প্রহরার ব্যবস্থাও করা হয়েছে।

ভ্যাকসিন প্রয়োগের জন্য আগামী রোববার (৩১ জানুয়ারি) থেকে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে বলে জানান ডেপুটি সিভিল সার্জন। টাঙ্গাইলে আগামী (৮ ফেব্রুয়ারি) টিকার কার্যক্রম উদ্বোধন করা হবে। জেলা শহরের ৫টি কেন্দ্রে করোনার টিকা দেয়া হবে। এছাড়া প্রতিটি উপজেলায় ২টি কেন্দ্রে টিকা দেয়া হবে। টাঙ্গাইলের ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. বি.এম. রিয়াজুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সিভিল সার্জন বি.এম. রিয়াজুল ইসলাম আরও বলেন, আজ শুক্রবার সকালে ১০টি বড় কার্টুনে করে ১ লাখ ২০ হাজার ডোজ ভ্যাকসিন এসেছে। প্রতিটি কার্টুনে ১২শ’ করে ভায়াল রয়েছে। সারাদেশের ন্যায় টাঙ্গাইলেরও আগামী (৮ ফেব্রুয়ারি) টিকার কার্যক্রম উদ্বোধন করা হবে। ভ্যাকসিন নিতে আগ্রহীদের অনলাইন নিবন্ধন শুরু হয়েছে। প্রথম পর্যায়ে করোনা মোকাবিলায় নিয়োজিত চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী, সরকারি অন্যান্য সংস্থার সম্মুখসারির কর্মী, বয়োজ্যেষ্ঠ জনগোষ্ঠী, বীর মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিক, সরকারের অত্যবর্শক্রীয় অন্যান্য এজেন্সির সদস্যরা করোনার টিকা পাবেন। পর্যায়ক্রমে ১৮ বছরের উপরে সকলকেই টিকা পাবেন।

তিনি বলেন, জেলা শহরের ৫টি কেন্দ্রে টিকা দেয়া হবে। এর মধ্যে ৪টি কেন্দ্র টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল এবং ১ টি কেন্দ্র পুলিশ হাসপাতালে। এছাড়া প্রতিটি উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লক্সে ২টি করে কেন্দ্রে টিকা দেয়া হবে। তিনি টিনিউজকে আরো বলেন, গত বুধবার (২৭ জানুয়ারি) থেকে অনলাইনে নিবন্ধন শুরু হয়েছে। অনলাইনে নিবন্ধনকৃতদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে ভ্যাকসিনগুলো দেওয়া হবে। টিকাদানকারী স্বাস্থ্যকর্মীদের পর্যাপ্ত প্রশিক্ষন দেয়া হবে। টিকা নিয়ে কেউ যাতে কোন গুজব বা বিভ্রান্তি না ছড়াতে পারে সেজন্য জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ তৎপর রয়েছে। রেজিস্ট্রেশন ছাড়া, ১৮ বছরের নিচে, গর্ভবতী মা ও দুগ্ধদানকারী, গুরুত্বর অসুস্থ ও হাসপাতালে ভর্তিকৃত ব্যক্তিরা টিকা পাবেন না। টিকা গ্রহণের পরে মৃদ্যু পাশ্ব প্রতিক্রিয়া হতে পারে, তবে মারাত্মক কোন পাশ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি। এ টিকাটি এখন পর্যন্ত নিরাপদ।

এ সময় টাঙ্গাইলের ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. বি.এম. রিয়াজুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মীর মনির হোসেন, জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার মারিয়ান খাতুন, ওধুষ প্রশাসনের সহকারী পরিচালক নারগিস আক্তার, জেলার সিভিল সার্জন অফিসের ইপিআই সুপারিনডেন্ট সোলাইমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আজকের টাঙ্গাইল
আজকের টাঙ্গাইল